তথ্য সংকলন

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ ও এটুআই প্রোগ্রামের যৌথ উদ্যোগে সারাদেশে সরকারি কর্মকর্তাদের জন্য নাগরিক সেবায় উদ্ভাবন বিষয়ক দক্ষতা বৃদ্ধির কার্যক্রম চলমান রয়েছে। এর আওতায় মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তর, দপ্তর সংস্থা এবং জেলা-উপজেলা পর্যায়ের সরকারি কর্মকর্তাগণ বিভিন্ন উদ্ভাবনী উদ্যোগ বাস্তবায়ন করছেন

প্রশিক্ষণ ও কর্মশালা:

‘এ্যমপেথী’ বিষয়ক ট্রেনিং: (১ম পর্যায়)

  • ১১১ ব্যাচ এর মাধ্যমে মাঠ পর্যায়ের ৩৩৭১ জন কর্মকর্তাকে ৫ দিনের ‘এ্যমপেথী’ প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে;
  • ২২৮ ব্যাচ এর মাধ্যমে মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তর, দপ্তর সংস্থা ও জেলা পর্যায়ের ৬১৮৪ কর্মকর্তাকে ‘এ্যমপেথী’ বিষয়ক ২ দিনের ইন-হাউজ প্রশিক্ষণ প্রদান করা হয়েছে;
  • ১৪৭২ টি ক্যাসকেডিং প্রশিক্ষণের মাধ্যমে ১৩১০২ জন কর্মকর্তাকে ‘নাগরিক সেবায় উদ্ভাবন’ বিষয়ে ধারণা প্রদান করা হয়েছে।

‘ইনোভেশন প্রজেক্ট ডিজাইন’ শীর্ষক প্রশিক্ষণ: (২য় পর্যায়)

  • ৫৫ টি ৩ দিনের ‘ইনোভেশন প্রজেক্ট ডিজাইন’ শীর্ষক প্রশিক্ষণের মাধ্যমে ১২৯৬ জন কর্মকর্তার ইনোভেশন আইডিয়াসমূহের বাস্তবায়ন উপযোগী চূড়ান্ত রূপ দেয়া হয়েছে।

‘ডকুমেন্টেশন ও ডিসেমিনেশন’ শীর্ষক কর্মশালা: (৩য় পর্যায়)

  • ১৫ টি ২ দিনের ‘ডকুমেন্টেশন ও ডিসেমিনেশন’ কর্মশালার মাধ্যমে ৪১৬ জন কর্মকর্তাকে প্রজেক্ট ডকুমেন্টেশন বিষয়ে সম্যক ধারণা প্রদান করা হয়েছে।

‘উদ্ভাবন সংস্কৃতি বিকাশে মেন্টরিং’ শীর্ষক কর্মশালা:

  • ১৮ ব্যাচ ২ দিনের ‘উদ্ভাবন সংস্কৃতি বিকাশে মেন্টরিং’ শীর্ষক কর্মশালার মাধ্যমে ৫২২ জন উর্দ্ধতন কর্মকর্তাকে উদ্ভাবনী আইডিয়াসমূহ সঠিক ও সফলভাবে বাস্তবায়নে কার্যকর ও প্রয়োজনীয় সহযোগিতা প্রদানের জন্য সম্যক ধারণা প্রদান করা হয়েছে।

উদ্ভাবনী আইডিয়া:

  • বর্তমানে মাঠ পর্যায়ে প্রায়৮১৭ টি উদ্ভাবনী উদ্যোগ চলমান রয়েছে;
  • ৪০৬ টি প্রকল্পের পাইলটিং ইতোমধ্যে সমাপ্ত হয়েছে তবে এগুলোর পর্যালোচনা ও মূল্যায়ন প্রক্রিয়াধীন;
  • মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তর পর্যায়ে ১৪ টি শোকেসিং কর্মশালার মাধ্যমে সর্বমোট ২৯১টি উদ্ভাবনী পাইলট প্রকল্পের (সমাপ্ত) পর্যালোচনা ও মূল্যায়ন সম্পন্ন হয়েছে;
  • ৪৮টি উদ্ভাবনী পাইলট প্রকল্প ১৪টি মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তর কর্তৃক চিহ্নিত করে সারাদেশে রেপ্লিকেশন এবং ৩৭ টি প্রকল্প বৃহত্তর পাইলটিং এর জন্য প্রক্রিয়াধীন আছে।

 

ইনোভেশন টিম:

  • ৮ এপ্রিল ২০১৩ এর মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী মন্ত্রণালয়, অধিদপ্তর, দপ্তর সংস্থা, বিভাগ, জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রায় ১০০০ ইনোভেশন টিম গঠিত হয়েছে এবং প্রায় ৪০০’র বেশী টিমের বার্ষিক উদ্ভাবন কর্মপরিকল্পনা প্রণয়ন করত: স্বীয় ওয়েব পোর্টালে আপলোড করা হয়েছে;
  • ২০ ব্যাচ কর্মশালার মাধ্যমে ৫০১ জন উর্দ্ধতন কর্মকর্তাকে (CIO এবং IO) ‘ইনোভেশন টিম’ সক্রিয়করণ এবং স্বীয় দপ্তরে ‘ইনোভেশন সংস্কৃতি’ ত্বরান্বিত করার লক্ষ্যে সম্যক ধারণা প্রদান করা হয়;
  • ১৪ টি ইনোভেশন ফোরামে ১৫৪৯ জন চীফ ইনোভেশন অফিসার ও ইনোভেশন অফিসার অংশগ্রহণ করেছেন।

 

রিসোর্স পুল:

  • ২১৪ জনের প্রশিক্ষিত ও সক্রিয় সহায়ক দল (রিসোর্স পুল) রয়েছে যাদের মাধ্যমে উপরোল্লিখিত প্রশিক্ষণ কর্মশালাসমূহ সকল পর্যায়ে পরিচালিত হচ্ছে।

সরকারি প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠানে ‘ইনোভেশন ও ডিজিটাল বাংলাদেশ’ কনটেন্ট:

  • ৫০ টিরও বেশি সরকারি প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠানের স্বল্প ও দীর্ঘ মেয়াদী কোর্স-কারিকুল্যামে ইনোভেশন ও ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়ক কনটেন্ট অন্তর্ভূক্ত হয়েছে। এ লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠানের সাথে সোশ্যাল মিডিয়া সংলাপ আয়োজন করা হয়ে থাকে।

ইনোভেশন সার্কেল:

  • বিভাগীয় ও জেলা ইনোভেশন টিমের নেতৃত্বে ইনোভেশন সার্কেল চলমান, এখন পর্যন্ত ৪৭ টি সার্কেলে ৪১৪৮ জন উপস্থিত ছিলেন।

পার্টনারশীপ:

  • জাতীয় পর্যায়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ, জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়সহ মোট ৫০ টি সরকারি প্রশিক্ষণ প্রতিষ্ঠান ও ১টি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে পার্টনারশীপ হয়েছে।
  • আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সিঙ্গাপুরে অবস্থিত ই-গভর্ন্যান্স লীডারশীপ প্রোগ্রাম (e-GL) এর সাথে ক্যাপাসিটি ডেভেলপমেন্ট বিষয়ে পার্টনারশীপ হয়েছে। ইতিমধ্যে ১৮০ জন মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের নিয়ে ঢাকা ও সিঙ্গাপুরে ৭ টি কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

স্বীকৃতি:

  • মাঠ পর্যায়ে উদ্ভাবকদেরকে মাঠ প্রশাসন কর্তৃক স্বীকৃতি প্রদান করা হচ্ছে;
  • জাতীয় পর্যায়ে ‘জনপ্রশাসন পদক’ চালু করা হয়েছে। ইতিমধ্যে ২০১৫ সালের জন্য ৩০ জনকে এই পদক প্রদান করা হয়েছে যেখানে ১৮জনই হলো উদ্ভাবক;
  • মন্ত্রণালয় ও অধিদপ্তর পর্যায়েও উদ্ভাবনকে স্বীকৃতি দেয়ার সংস্কৃতি চালু হয়েছে যার আওতায় উদ্ভাবকদেরকে বিদেশ প্রশিক্ষণে প্রেরণ করা হচ্ছে;
  • উদ্ভাবনকারী কর্মকর্তাকে ‘এসিআর’-এ বিশেষভাবে গুরুত্ব প্রদান করা হয়েছে।

সরকারি কাজে সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার:

  • ৫০০০ এর বেশি সরকারি অফিসে সোশ্যাল মিডিয়ার ব্যবহার চলমান রয়েছে
  • ৫০ লক্ষের অধিক নাগরিক সরকারি সোশ্যাল মিডিয়া প্লাটফরমে সম্পৃক্ত
  • ১৫,০০০ এরও বেশি সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ের কর্মকর্তাপাবলিক সার্ভিস ইনোভেশন বাংলাদেশফেসবুক গ্রুপে সম্পৃক্ত
  • প্রায় ৬০ লক্ষের অধিক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান জেলা প্রশাসনের সমন্বয়েসিটিজেন জার্নালিজম’-এ সম্পৃক্ত
  • ৬৪ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়সহ একাধিক অধিদপ্তর সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে দ্রুত নাগরিক সমস্যা সমাধান করছে
  • ৬৪ জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সমন্বয়ে প্রতি দুই মাসে সোশ্যাল মিডিয়া সংলাপ আয়োজন করা হয়
  • প্রতি মাসে গড়ে ৪০০-৫০০ এর মতো সিটিজেন কেন্দ্রিক সমস্যা সমাধান হচ্ছে যেখানে নীতি নির্ধারণী পর্যায়ের কর্মকর্তাগণ সম্পৃক্ত।